প্রচ্ছদ খবর বৈচিত্র এমন শহরও আছে,যেখানে কাঁদতে যান মানুষ

এমন শহরও আছে,যেখানে কাঁদতে যান মানুষ

833
0
এমন শহরও আছে,যেখানে কাঁদতে যান মানুষ। ইহুদিদের কাছে অত্যন্ত পবিত্র এই শহরের মাটি।
শহরের নাম জেরুসালেম। এখানেই রয়েছে ওয়েলিং ওয়াল বা বিলাপ প্রাচীর। ইহুদি সম্প্রদায়ের বিশ্বাস, ওয়েলিং ওয়ালের কাছেই সমাধিস্থ করা হয়েছিল যিশুকে। তাই আজও এই প্রাচীর আঁকড়ে নিজেদের সুখ-দুঃখ উজাড় করে দেন হাজার হাজার ইহুদি। মন খুলে কেঁদে হালকা হওয়ার থেরাপি আজকের নয়। এমন শহরও আছে যেখানে বহু  মানুষ এখনও কাঁদতে যান। এমনই এক অদ্ভুত  শহরের আজ গল্প শোনাবো আপনাদের।
শহরের নাম জেরুসালেম। পাথর যদি গলতে পারত তবে দু’হাজার বছরের পুরনো এই পাথরে দেওয়াল বোধয় এতদিনে কান্নার নদী হয়ে যেত। পৃথিবীর এক আশ্চর্য বিস্ময় এই বিলাপ দেওয়াল বা ওয়েলিং ওয়াল।  এই দেওয়াল ছোঁয়ার জন্যই ধৈর্য ধরে দাঁড়িয়ে থাকেন রোজ কয়েকশো মানুষ। এদের মধ্যে বেশিরভাগই ইহুদী। সেও এক আশ্চর্য দৃশ্য। যত দূর চোখ যায় শুধুই কান্নার লাইন। দুহাতে দেওয়াল আঁকড়ে ,সাত আট টনের পাথরের চাইয়ে কপাল-গাল ঠেকিয়ে ডুকরে ডুকরে কেঁদে উঠছেন কয়েকশো মানুষ। কেউ কেউ জামার ভাঁজ, পকেট থেকে একটুকরো কাগজ বের করে গুঁজে দেন পাথরের খাঁজে।  দেওয়াল জুড়ে সেজে থাকে কত ইচ্ছে-লেখা কাগজ। দেওয়ালেরও কান আছে কথাটা নাকি এই দেওয়াল থেকেই এসেছে।
আসলে এই কান্না, জীবনের ভার কমানোর এক সহজ পথ ইহুদিদের। লোকশ্রুতি বিশ্বের প্রথম চার্চ ছিল এখানেই। এখানেই সমাধিস্থ করা হয় যিশুকে। সেই চার্চ ভেঙে গুঁড়িয়ে দেয় রোমানরা। এখন বেঁচে আছে শুধু দেওয়াল টুকুই। তাকে জড়িয়ে ধরেই জীবনের সব দুঃখ উজাড় করে দেয় ইহুদি সম্প্রদায়। চোখের জলে ভার কমে জীবনের।
– জিনিউজ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here