প্রচ্ছদ বিনোদন নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিতে দেশে আসছেন শাবানা

নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিতে দেশে আসছেন শাবানা

29
0
SHARE
বিনোদন ডেক্স: নির্বাচন উপলক্ষে দেশে ফিরছেন বাংলা চলচ্চিত্রের স্বর্ণালী যুগের অভিনেত্রী শাবানা। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসাবে এমপি নির্বাচন করবে অভিনেত্রীর স্বামি ওয়াহিদ সাদিক। তার প্রচারণা কাজে যুক্ত হবেন অভিনেত্রী। এজন্য দেশে ফিরেই তিনি যাবেন যশোর। সেখানে সংসদীয় আসন ৬ (কেশবপুর) থেকে প্রার্থী হবেন তিনি।
সূত্র জানিয়েছে, আগামী মাসেই দেশে ফিরছেন কিংবদন্তি এ অভিনেত্রী। এ যাত্রায় কয়েক মাস তিনি বাংলাদেশে থাকবেন।

শাবানার স্বামী নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন তার ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছিল বছর খানেক আগে থেকেই। বেশ কয়েকবার স্বামীকে নিয়ে কেশবপুরের সাধারণ মানুষের সাথে মতবিনিময় করেছেন। সর্বশেষ গত ১৮ জুলাই যশোর উপজেলার সাগরদাঁড়ি ও স্বামীর জন্মভিটা বড়েঙ্গা গ্রামে এ মতবিনিময় করেন।

তখন শাবানা জানিয়েছিলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে সাক্ষাৎকালে তিনি শাবানাকে নিবার্চন করতে বলেন। তবে তিনি নিজে এ মুহূর্তে নিবার্চনে না আসতে চাইলেও স্বামী ওয়াহিদ সাদিক যশোর-৬ (কেশবপুর) সংসদীয় আসন থেকে নিবার্চন করবেন বলে ঘোষণা দেন।
শাবানা মোট ১০ বার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেন। ১৯৭৭ সালে তিনি প্রথম এই পুরস্কার পান ‘জননী’ সিনেমার জন্য। এরপর ১৯৮০, ১৯৮২, ১৯৮৩, ১৯৮৪, ১৯৮৯, ১৯৯০, ১৯৯১, ১৯৯৩ এবং ১৯৯৪ সালে তিনি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেন। তার অন্যান্য পুরস্কারের মধ্যে আছে ১৯৮২ সালে নাট্য নিকেতন পুরস্কার, ১৯৮২ ও ১৯৮৭ সালে বাচসাস পুরস্কার, ১৯৮৪ সালে আর্ট ফোরাম পুরস্কার ও সায়েন্স ক্লাব পুরস্কার, ১৯৮৫ সালে ললিতকলা একাডেমী পুরস্কার, ১৯৮৭ সালে কামরুল হাসান পুরস্কার, ১৯৮৮ সালে নাট্যসভা পুরস্কার, ১৯৮৯ সালে কথম একাডেমী পুরস্কার, ১৯৯১ সালে প্রযোজক সমিতি পুরস্কার এবং জাতীয় যুব সংগঠন পুরস্কার। শাবানা ১৯৭৩ সালে ওয়াহিদ সাদিককে বিয়ে করেন।
১৯৯৭ সালে শাবানা দীর্ঘ ৩৪ বছর কাজ শেষে হঠাৎ চলচ্চিত্র অঙ্গন থেকে বিদায় নেয়ার ঘোষণা দেন। এরপর তিনি আর নতুন কোন ছবিতে অভিনয় করেননি। ২০০০ সালে তিনি সপরিবারে যুক্তরাষ্ট্রে চলে যান। এককালের ঢাকার চলচ্চিত্রের বিউটি কুইন খ্যাত শাবানা এখন পরিপূর্ণভাবে ইসলাম ধর্মের অনুসারী হয়ে জীবন যাপন করছেন। এখন তার দেখা পাওয়া সাধারণ মানুষের পক্ষে তো বটেই কোনো সাংবাদিকের পক্ষেও কঠিন।
স্বামী এবং ২ মেয়ে ও ১ ছেলেকে নিয়ে তিনি এখন যুক্তরাষ্ট্রে স্থায়ী। তার পৈতৃক বাড়ি চট্টগ্রামের রাউজান উপজেলার ডাবুয়া গ্রামে। তার বাবা ফয়েজ চৌধুরী চিত্র পরিচালক ছিলেন।

কৃতজ্ঞতায়: নয়া দিগন্ত