প্রচ্ছদ জানা-অজানা অক্টোবরে নির্যাতিত তিন শতাধিক নারী ও কন্যাশিশু

অক্টোবরে নির্যাতিত তিন শতাধিক নারী ও কন্যাশিশু

24
0
SHARE
অনলাইন ডেক্স: বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের লিগ্যাল এইড উপ-পরিষদের প্রকাশিত এক প্রতিবেদন মতে চলতি বছর অক্টোবর মাসে ৭২টি ধর্ষণের ঘটনাসহ মোট ৩০১টি নারী ও কন্যাশিশুসহ নির্যাতনের ঘটনা ঘটেছে। গতকাল মঙ্গলবার বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটি সাধারণ সম্পাদক মালেকা বানু লিখিতভাবে এ প্রতিবেদন প্রকাশ করেন। প্রতিবেদন মতে, ৭২টি ধর্ষণের ঘটনার মধ্যে গণধর্ষণের শিকার হয়েছে ১৭ জন, ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে ৭ জনকে ও ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে ৮ জন নারী ও কন্যাশিশুকে। একই সময় শ্লীলতাহানির শিকার হয়েছে ১ জন নারী। যৌন নির্যাতনের শিকার হয়েছে ১০ জন নারী ও কন্যাশিশু। এ সময় এসিডদগ্ধের শিকার হয়েছে ১ জন।
প্রতিবেদনে দেখা যায়, এ সময় অগ্নিদগ্ধের শিকার হয়েছে ৪ জন। তার মধ্যে অগ্নিদগ্ধের কারণে মৃত্যু হয়েছে ৩ জনের। এ সময় অপহরণের ঘটনা ঘটেছে ১৩টি। প্রতিবেদন মতে, বিভিন্ন কারণে ৪৭ জন নারী ও কন্যাশিশুকে হত্যা করা হয়েছে। এ সময় যৌতুকের কারণে নির্যাতনের শিকার হয়েছে ১০ জন, তন্মধ্য হত্যা করা হয়েছে ৫ জন নারী ও কন্যাশিশুকে। এ সময় উত্ত্যক্ত করা হয়েছে ১৫ জন নারী ও কন্যাশিশুকে। উত্ত্যক্তের কারণে আত্মহত্যা করেছে ১ জন। নানা কারণে আত্মহত্যা করতে বাধ্য হয় ৩৩ জন। আত্মহত্যায় প্ররোচনার শিকার হয়েছে ১২ জন নারী ও কন্যাশিশু। ২৭ জনের রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। বাল্যবিয়ে হয়েছে ৪টি এবং ১৪টি বাল্যবিয়ের ঘটনা প্রতিরোধ করা গেছে। গত মাসে শারীরিক নির্যাতন করা হয়েছে ২৫ জন নারী ও কন্যাশিশুকে। গৃহপরিচারিকা নির্যাতন বন্ধ ছিল না উক্ত সময়ে। ৫টি গৃহপরিচারিকা নির্যাতন ঘটনা ঘটে, তন্মধ্য ১ জনকে হত্যা করা হয়েছে। ৩ জনকে পুলিশি নির্যাতন করা হয়েছে। এ ছাড়া নানাভাবে নির্যাতনের শিকার হয়েছে আরও বেশ কয়েকজন। উল্লেখ্য, বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের লিগ্যাল এইড উপ-পরিষদে সংরক্ষিত ১৪টি দৈনিক পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদের ভিত্তিতে এ প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়।
কৃতজ্ঞতায়: ইত্তেফাক।